স্বাগতম বিডি সংসার এর টিপস সেকশনে। এই সেকশনে নানা রকম প্রয়োজনীয় টিপস সেয়ার করা হয়ে থাকে। রান্নাবান্না ও রূপচর্চা গ্রুপে বার বার চুল পড়া সমস্যা নিয়ে হেল্প পোস্ট দেখা যায়। তাই আপনাদের জন্য আজ একটি স্পেশাল টিপস নিয়ে হাজির হয়েছি। যাতে আপনাদের চুল পড়া বন্ধ হবে অনেক অংশে। আসুন তাহলে দেখে নেই কিভাবে বন্ধ করবেন চুল পড়া। 

তেজপাতা রান্নার কাজে ব্যবহার হয়। তবে এই তেজপাতা ব্যবহার করে চুল পড়া বন্ধ করা সম্ভব। তেজপাতা চুলের রুক্ষতা দূর করে, চুলের খুশকি দূর করে। শীতকালে চুল প্রচুর পরিমানে পড়তে থাকে। আপনি চাইলে এই একটি উপাদান দ্বারা চুল পড়া দূর করতে পারেন। আসুন দেখে নেই কিভাবে তেজপাতা দিয়ে চুল পড়া বন্ধ করতে পারবেন তা দেখে নেই। 

প্রথমে একটি বাটি নিন। তাতে ঠান্ডা পানি নিয়ে নিন। তাতে তেজপাতা দিয়ে দিন। পানি দিয়ে খুব ভালোভাবে ধুয়ে নিন। যাতে করে কোন ময়লা না থাকে। একই ভাবে ২-৩ বার ধুয়ে নেবেন। ৪-৫টা তেজপাতা নিলেই হবে। ধোয়া হয়ে গেলে এবার একটি পরিস্কার প্যানে তেজপাতা দিয়ে দিন। তাতে দিয়ে দিন ১ গ্লাস ঠান্ডা পানি। ঢাকনা দিয়ে ফালোকরে ১০ মিনিট ফুটিয়ে নিন। মাঝে মাঝে নাড়িয়ে নিন। ১০ মিনিট পর মোটামুটি ঠান্ডা হলে, একটি বাটিতে ছাকনি দিয়ে পানি ছেকে নিন। ঠান্ডা হলে এটি ব্যবহার করার জন্য তৈরি হয়ে যাবে। এই পানিকে একটি স্প্রে বোতলে ভরে নিন। 

চুল পড়া বন্ধে তেজপাতার পানি ব্যবহারের নিয়ম -

এই বোতলের পানি প্রথমে ঝাকিয়ে নিন। তারপর এই স্প্রে চুলে ও চুলের গোড়ায় স্প্রে করে নিন। পুরো স্ক্যাল্পে দেওয়া হয়ে গেলে, ৫ মিনিট মাসাজ করতে হবে। রাতে এই প্যাকটি ব্যবহার করতে পারেন। অথবা গোসলের ৩-৪ ঘন্টা আগে ব্যবহার করতে পারেন। আর যেদিন এই প্যাক ব্যবহার করবেন সেদিন শ্যাম্পু করবেন না, শুধু নরমাল পানি দিয়ে চুল ধুয়ে ফেলবেন। তার পরের দিন শ্যাম্পু ও কন্ডিশনার দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। ভালো ফলাফল পেতে এই প্যাক এক নাগাড়ে ১ সপ্তাহ ব্যবহার করুন।