৬ রকমের মসলা রেসিপি

গরম মসলা গুড়া

উপকরনআস্ত ধনিয়া ৪ টেবিল চামচ , আস্ত জিরা ৩ টেবিল চামচ , মৌরি ১ টেবিল চামচ , বড় এলাচি ৫ টি , গোলমরিচ ১ টেবিল চামচ ,

ছোট এলাচি ১৬ টি , দারুচিনি ৩/৪ টুকরা , জায়ফল দেড় টা ( ছোট আকারে ), তেজপাতা ৫ টি (ছোট ছোট ) , লবঙ্গ ১/২ টেবিল চামচ , স্টার আনিশ ৪ টি ( ছোট )

প্রনালীশুকনো কড়াইতে সব মসলা টেলে নিন । খেয়াল রাখুন মসলা গুলো বেশি টালা না হয় । বেশি টাললে মসলা পুড়ে কালো হয় পাবে । টালা মসলা ঠান্ডা হলে গুড়া করে নিন তাহলে মিহি গুড়া হবে । গরম গরম গুড়া করলে মিহি হবে না । গুড়া করা গরম মসলা টাইট ঢাকনা আছে এমন বোতলে ভরে আপনি ফ্রিজে বা বাহিরে রেখে অনেক দিন ব্যাবহার করতে পারবেন ।

চাট মসলা

উপকরন :১০ টি শুকনা মরিচ , ১/২ হাফ টেবিল চামচ পাচঁফোড়ন , ১ টেবিল চামচ ঝিরা ,

১ চা চামচ মৌরি, ১ চা চামচ গোল মরিচ , ১ চা চামচ বীট লবন , ২ চামচ ড্রাই ম্যেঙ্গ পাউডার ( আম চূর পাউডার ) ১ চা চামচ আদা পাউডার , ১ চা চামচ লবন

প্রনালিআম চূর এবং বীট লবন ,আদা পাউডার, লবন বাদ রেখে সব মসলা হালকা টেলে নিতে হবে । মসলা যদি বেশি টালা হয় তাহলে মসলা কালো হয়ে যাবে এবং তিতা লাগবে আবার কম ও যদি টালা হয় মসলা আসল স্বাদ পাওয়া যাবে না ।তাই মসলা সেই ভাবে টেলে নিতে হবে ,বেশি ভাজা ও হবেনা আবার কম ওনা । টালা শেষ হলে ঠান্ডা করে গুড়া করে নিয়ে বীট লবন ,এবং আম চূর লবন , অাদা পাউডার মিশিয়ে নিয়ে তৈরি করা চাট মসলা এয়ার ট্রাইট বোতল ভরে অনেক দিন সংরক্ষন করা যাবে ।

মুরগি রোস্ট মসলা

উপকরণধনিয়া ৪ টেবিল চামচ, জয়ফল ২ টি ( মাঝারি আকারে ) , জয়ত্রি ১/২ টেবিল চামচ , পোস্তদানা ১ টেবিল চামচ , শাহ জিরা ১ টেবিল চামচ ,

সাদা গোল মরিচ ১/২ টেবিল চামচ , ছোট এলাচি ১৮ টি , বড় এলাচি ২ টি ( মাঝারি ) , দারুচিনি ৩/৪ টি ছোট আকারে ভাঙ্গা , তেজপাতা ২ টি , লবঙ্গ ৭/৮ টি, পেস্তা বাদাম ২০ টি , জাফরান ২/৩ টি সুতা, লবন ১ চা চামচ ।

প্রনালীশুকনো কড়াইতে লবন এবং পেস্তা বাদাম এবং জাফরান বাদ রেখে বাকি সব মসলা টেলে নিন । খেয়াল রাখুন মসলা গুলো বেশি টালা না হয় । বেশি টাললে মসলা পুড়ে কালো হয় পাবে । এবার মসলা নামিয়ে রেখে বাদাম গুলো হালকা শুকনো টেলে নিন। টালা মসলা এবংবাদাম সাথে লবন এবং জাফরান দিয়ে গুড়া করে নিন । মসলা গুলো ঠান্ডা হলে মিহি গুড়া হবে । গরম গরম গুড়া করলে মিহি হয় না । লবন কিন্তু অল্প দিবেন । আমি ১ চা চামচ দিয়েছি । রান্না সময় খেয়াল রাখবেন যে রোস্টার মসলা একটু লবন দেওয়া আছে । গুড়া করা গরম মসলা টাইট ঢাকনা আছে এমন বোতলে ভরে আপনি ফ্রিজে বা বাহিরে রেখে অনেক দিন ব্যাবহার করতে পারবেন । জাফরান দেওয়াতে মসলা টা মাঝে শাহী শাহী একটি খুশবু আসবে। রোস্ট এর মধ্যে কাচা জিরা বাটা দিলে দারুন সুস্বাদু হয় রোস্টের গুড়া করা মসলা সাথে আমি ঝিরা দেই নাই । আপনি এই মসলা বানিয়ে রাখবেন যখন রোস্ট রান্না করবেন তখন কাচাঁ জিরা বেটে ব্যবহার করেন ।

কারি পাউডার

উপকরন (ক)ধনিয়া ৩ টেবিল চামচ , জিরা ২ টেবিল চামচ , মেথি হাফ টেবিল চামচ , আস্ত সরিষা ১ চা চামচ , গোল মরিচ ১ চা চামচ , এলাচ ৬ টি , দারুচিনি ২/৩ টি( ছোট ছোট ভাঙ্গা স্টিক) , তেজপাতা ২ টি,শুকনা মরিচ ৭ টি ,

 

(খ)পাউডার মসলা :হলুদ গুড়া ১ টেবিল চামচ , কাশ্বমিরা লাল মরিচ গুড়া ১ টেবিল চামচ অথবা পাপরিকা গুড়া , পেয়াজ পাউডার ১ চা চামচ , রসুন পাউডার ১ চা চামচ , আদা পাউডার ১ চা চামচ , লবন ১ চা চামচ ।

প্রনালিউপকরন(ক) সব শুকনো মসলা গুলো কড়াইতে টেলে নিন । মসলা গুলো ঠান্ডা হলে উপকরন(খ) গুড়া মসলা এবং লবন দিয়ে ব্রেন্ডারে গুড়া করে নিন সব মসলা এক সাথে । এয়ার টাইট বক্স মসলা ভরে ফ্রিজে রেখে অনেক দিন ব্যবহার করতে পারবেন ।

চাইনিজ ফাইভ স্পাইস রেসিপি

উপকরন ও প্রণালী:৮ টি স্টার অনিস , মৌরি ১ টেবিল চামচ , লবঙ্গ ১/২ টেবিল চামচ , ১ টেবিল চামচ গোলমরিচ গুড়া , দারুচিনি লম্বা একটি টুকরা ( আমার ছবিতে যে দারুচিনি আছে এই রকম আকারে ১ টি টুকরা ) , সব গুলো মসলা কড়াইতে টেলে ঠান্ডা করে ব্রেন্ডারে গুড়া করে এয়ার টাইট বক্সে রাখুন ।গরুর মাংস ,মুরগি মাংস , চাইনিজ অনেক রান্না এই মসলা ব্যবহার করা হয় ।

হালিম মসলা

উপকরন:১ টেবিল চামচ জিরা , ১/২ টেবিল চামচ ধনিয়া , ৪ টি এলাচি ,

১ চা চামচ গোলমরিচ , ৩/৪ টি লবঙ্গ , ১/২ হাফ চা চামচ মৌরি , হাফ জয়ফল ,

প্রণালী:সব মসলা টেলে গুড়া করে নিতে হবে । যদি ঝাল পছন্দ করো তাহলে ৪/৫ টি শুকনা মরিচ টেলে এক সাথে গুড়া করে নিতে পারো