মোবাইল ফোনে পপ আপ ক্যামেরা যুক্ত করার উপর জোর দিতে শুরু করেছেন মোবাইল সেট নির্মাতারা।গত বছরে উদ্ভাবিত প্রযুক্তিটি নতুন বছরে উন্মুক্ত হতে যাওয়া বেশ কয়েকটি ব্রান্ডের মোবাইলে যুক্ত হবে বলে জানা গেছে। এই ক্যামেরা নিখুঁত সেলফি তোলার পাশাপাশি ফুলভিউ ডিসপ্লের শতভাগ নিশ্চিত করে।

২০১৮ সালে ভিভোর নেক্স মোবাইলে প্রথমবারের মত পপ আপ সেলফি ক্যামেরা ব্যবহৃত হয়।মোবাইলের মূল বডির ভেতরে আলাদা চেম্বারে এ ক্যামেরা গোপনে বসানো থাকে।সেলফি মুডে গেলে তা ভেসে উঠে ছবি তোলে।

বাজারে প্রচলিত মোবাইল ফোনের সামনের স্ক্রিনে বসানো থাকে সেলফি ক্যামেরা।এতে একদিকে স্ক্রিনের পরিধি ছোট হয়ে পড়ে। অন্যদিকে আধুনিক প্রযুক্তির বিবর্তনের যুগে তা দেখতেও বেমানান।দীর্ঘদিন ধরে সেলফি ক্যামেরার জন্য বিকল্প স্থান ও স্টাইল খুঁজছিলেন প্রযুক্তিবিদরা।ভিভোর পপ আপসেলফি ক্যামেরায় সেই চিন্তা ও চাহিদার বিপরীতে এক চমৎকার সমাধান নিয়ে এসেছে।

এই প্রযুক্তি সমৃদ্ধ মোবাইলের ক্রেতারাও নতুন স্টাইলের ফোন ব্যবহারের মাধ্যমে আলাদাভাবে দৃষ্টি আকর্ষন করতে পারবেন। ভিভো জানায়, ব্যবহারকারীরা যখনই ফোনের সেলফি মুডে যাবেন, এটি স্বয়ংক্রিয়ভাবেই চালু হয়ে যাবে, আর কাজ ফুরালেই তাৎক্ষণিক ক্যামেরা বন্ধ হয়ে যাবে। এটির ব্যবহারে মোবাইল স্ক্রিনের জায়গা কমবে না একটুও।এটি বাইরের আঘাত প্রতিরোধ করতে সক্ষম।

এমনকি বাইরের আঘাত নির্ণয় করেও ফ্রন্টক্যামেরা স্বয়ংক্রিভাবেই বন্ধ হয়ে যায়।সব মিলিয়ে ফ্রেমহীন স্মার্টফোন ডিজাইনের পথপ্রদর্শক হিসেবে অগ্রগণ্য ভিভো। ২০১৯ সালে নচ ফ্রি ও ফ্রেমহীন (বেজেললেস) ডিজাইনের মোবাইল মিড রেঞ্জের দামে পাওয়ার ক্ষেত্রে এই পপ আপ ক্যামেরা বড় প্রত্যাশা তৈরি করেছে।

/সংবাদ বিজ্ঞপ্তি/