চুল পড়ার সমস্যায় ভুগছেন এমন মানুষের সংখ্যা নেহাত কম না। চুল পড়া সমস্যার কারনে অনেকেই অনেক রকম টিপস দিয়ে থাকেন, নানা রকম প্রসাধনী ব্যবহার করেও তেমন ভালো রেজাল্ট পাওয়া যায় না, তাদের জন্য আজকের টিপস। পেয়ারার পাতার গুনের সাহায্যে বন্ধ হবে চুল পড়া।

পেয়ারার বৈজ্ঞানিক নাম Psidiun guajava। চুল পড়া বন্ধ করতে ও নতুন চুল গজাতে দারুন কার্যকরী পেয়ারার পাতা। ভিটামিন সি সমৃদ্ধ পেয়ারা ত্বকের জন্যও বেশ উপকারী। এমনকি পেয়ারার পাতাও ত্বকের জন্য অনেক ভালো। বিশেষ করে চুল পড়া রোধে অনেক কার্যকরী পেয়ারার পাতা।

পেয়ারার পাতায় রয়েছে এন্টি অক্সিডেন্ট ও অ্যান্টি মাইক্রোবিয়াল এবং অ্যান্টি ইনফ্লামেটরী। মাথার তালু সুস্থ রাখতে এই সকল উপাদান জরুরী। চুলের খুশকি দূর করতে যাহায় করবে। ভিটামিন সি মাথার তালুতে ফলিক এসিডের ভারসাম্য বজায় রেখে নতুন চুল গজাতে সাহায্য করে।

আসুন দেখে নেই কিভাবে পেয়ারার পাতা ব্যবহার করে চুল পড়া বন্ধ করবেন। এ জন্য আমাদের লাগছে ১ মুঠো পরিমান পেয়ারার সুস্থ পাতা ও ১ লিটার বিশুদ্ধ পানি

যেভাবে করবেন - 

প্রথমে একটি পাত্রে পানি ফুটিয়ে গরম করে নিন। পানি ফুটে এলে এতে পেয়ারার পাতা গুলো দিয়ে দিন। ২০ মিনিট ধরে পাতা গুলোকে সেদ্ধ করতে হবে। ২০ মিনিট পরে পেয়ারার পাতা গুলো নামিয়ে নিন।

কিভাবে ব্যবহার করবেন পেয়ারার পাতার প্যাক - 
প্রথমে ভাল করে শ্যাম্পু করে নিন। শ্যাম্পু ব্যবহার করার সময় আপনার চুলে যে শ্যাম্পু স্যুট করে এমন শ্যাম্পু ব্যবহার করবেন। কিন্তু চুলে কন্ডিশনার ব্যবহার করবেন না। চুল শুকিয়ে এলে চুলে বেনি করে আলাদা করে নিন। এবার পেয়ারার পাতা ফুটানো পানি মাথায় ঢালুন। পানিটি মাথার তালুতে কমপক্ষে ১০ মিনিট ম্যাসাজ করুন। এই মিশ্রন ২ ঘন্টা চুলে লাগিয়ে রাখতে হবে। তারপর কুসুম গরম পানিতে চুল ধুয়ে ফেলুন।

দেখবেন আপনার চুল পড়ার সমস্যার অনেকটা সমাধান হয়েছে, এবং চুল হয়েছে অনেক উজ্জ্বল।